Breaking News

চ্যাম্পিয়নস লিগে স্লাভিয়াকে হারিয়ে স্বস্তির জয় বার্সার

লিওনেল মেসির ইতিহাস গড়ার রাতে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে স্লাভিয়ার মাঠে স্বস্তির জয় পেয়েছে বার্সেলোনা। বুধবার রাতে এফ’ গ্রুপের ম্যাচটি ২-১ গোলে জিতেছে এরনেস্তো ভালভেরদের শিষ্যরা।

খেলার তৃতীয় মিনিটেই দলকে এগিয়ে নেন মেসি। সতীর্থের পাস পেয়ে একজনকে ফাঁকি দিয়ে আর্থারকে বল বাড়িয়ে চোখের পলকে ঢুকে পড়েন ডি-বক্সে। ফিরতি বল পেয়ে প্রথম ছোঁয়ায় বাঁ পায়ের কোনাকুনি শটে ঠিকানা খুঁজে নেন বার্সেলোনা অধিনায়ক। আর এই গোলের মাধ্যমে রেকর্ডের খাতায় নাম লেখান বার্সা অধিনায়ক। চলতি আসরে এটি তার প্রথম গোল।

এ নিয়ে ইউরোপসেরা টুর্নামেন্টের ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে টানা ১৫ আসরে গোল করার অনন্য কীর্তি গড়লেন মেসি। সেই সঙ্গে প্রতিযোগিতাটির ইতিহাসে সর্বোচ্চ ৩৩টি দলের বিপক্ষে গোল করার কৃতিত্ব দেখালেন তিনি। এর আগে এ নজির আছে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো ও কিংবদন্তি রাউল গঞ্জালেসের। এবার তাদের পাশে বসলেন ছোট ম্যাজিসিয়ান।

পিছিয়ে পড়ে আক্রমণের ধার বাড়ায় স্লাভিয়া। ছন্দময় ফুটবল খেলতে থাকেন তারা। এ সময়ে অনেকটা নির্জীব দেখা যায় বার্সাকে। যদিও গোল পেতে বিলম্ব হয় স্বাগতিকদের। অবশ্য দ্বিতীয়ার্ধের শুরুর দিকেই সাফল্য পেয়ে যায় উজ্জীবিত স্লাভিয়া। গোছানো আক্রমণে ৫৫ মিনিটে সমতায় ফেরেন তারা। ডি-বক্সে জেরার্ড পিকে ও জর্ডি আলবার মধ্য দিয়ে ডান পায়ের বজ্রগতির শটে নিশানাভেদ করেন ইয়ান বোরিল।

অবশ্য সমতায় ফেরার আনন্দ স্থায়ী হয়নি স্লাভিয়ার। মিনিট দুয়েক পর ঠিকানায় বল পাঠিয়ে অতিথিদের আনন্দে ভাসান পিটার ওলাইয়াঙ্কা। শেষ দিকে বার্সা রক্ষণে একচেটিয়া চাপ সৃষ্টি করে অপেক্ষাকৃত খর্বাশক্তির স্লাভিয়া। বেশ কয়েকটি সুযোগও তৈরি করেন তারা। তবে গোলমুখ খুলতে পারেনি অখ্যাত এ দলটি।

বাকি সময়ে গোল করতে পারেননি আর্নেস্তো ভালভার্দের শিষ্যরা। শেষ পর্যন্ত ২-১ গোলের জয়ে মূল্যবান ৩ পয়েন্ট নিয়ে ফেরেন তারা। তিন ম্যাচে ২ জয় ও ১ ড্রয়ে ৭ পয়েন্ট নিয়ে ‘এফ’ গ্রুপে শীর্ষে রইলেন স্প্যানিশ জায়ান্টরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.